ড্রেন নির্মাণকাজে নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহারের অভিযোগ
Published : Friday, 24 November, 2017 at 12:00 AM
কুমিল্লা প্রতিনিধি : চান্দিনা পৌরসভায় সরকার ও আইডিএ-এর অর্থায়নে ৩ হাজার ৪৫৪ মিটার ড্রেন নির্মাণকাজে নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহারসহ ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। ড্রেনের নিচের সলিংয়ে নম্বরবিহীন ইটের সুরকি, নিম্নমানের ভিটি বালু ব্যবহার করা হচ্ছে। বক্স ড্রেন ও ড্রেন স্লাব তৈরিতে এলসির মাধ্যমে আমদানিকরা পাথরের পরিবর্তে দেশি বোল্ডার ভাঙা পাথর ব্যবহার হচ্ছে। চান্দিনা বাজারের ব্যবসায়ী, যানবাহনের চালক ও স্থানীয়রা ওই অভিযোগ করেন। এ ছাড়া রড বাঁধাই থেকে ঢালাই রেসিওতে প্রজেক্টের নিয়ম মানা হচ্ছে না বলে অভিযোগ উঠেছে। পৌরসভা সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা যায়, মিউনিসিপ্যাল গভারর্ন্যান্স অ্যান্ড সার্ভিসেস প্রজেক্টের (এমজিএসপি) আওতায় বাংলাদেশ সরকার ও আইডিএ-এর অর্থায়নে ১৩ কোটি ৭৩ লক্ষাধিক টাকা অর্থায়নে ২ হাজার ২৯৬ মিটার রাস্তা, ৩ হাজার ৪৫৪ মিটার ড্রেন এবং ২ হাজার ৪৫৮ মি. সড়ক বাতি স্থাপন ও উন্নয়ন কাজ করার কথা রয়েছে। ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান আরটি-কিউসি-বীথি এন্টারপ্রাইজ নামের জয়েন্ট ভেঞ্চার ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান টেন্ডারের মাধ্যমে ওই কাজ পায়। গত কয়েক মাস ধরে ড্রেন নির্মাণকাজ চালিয়ে যাচ্ছে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান। চান্দিনা বাজারের ব্যবসায়ী, যানবাহনের চালক ও স্থানীয় জনগণ নির্মাণকাজে অনিয়মের বিষয়ে স্থানীয় কাউন্সিলরদের কাছে মৌখিক অভিযোগ করেন। অভিযোগের প্রেক্ষিতে পৌরসভার ১ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আখতার আহম্মেদ নাদিম গত মঙ্গলবার সকালে সরেজমিনে ড্রেন নির্মাণকাজে নিম্নমানের সামগ্রী ব্যবহারের বিষয়টি নিশ্চিত হন। কাউন্সিলর আখতার আহম্মেদ নাদিম বলেন, এর চেয়ে নিম্নমানের সামগ্রী হতে পারে না। বালু ও ইট যেন একেবারেই মাটি। তিনি আরো জানান, বিষয়টি সংশ্লিষ্ট ইঞ্জিনিয়ার ও পৌরসভার মেয়রকে জানানো হয়েছে। এ ব্যাপারে এমজিএসপির দায়িত্বপ্রাপ্ত প্রকৌশলী মো. মিজানুর রহমান অনিয়মের সত্যতা রয়েছে জানিয়ে বলেন, কাউন্সিলর আখতার আহম্মেদ নাদিম আমাকে অনিয়মের বিষয়ে জানিয়েছেন। অভিযোগ পেয়ে আমি বিষয়টি খতিয়ে দেখছি। কাজের মান খারাপ হওয়ায় আমি কাজ বন্ধ রাখতে বলেছি। এ ব্যাপারে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান প্রতিনিধি মো. জাফর ইকবাল বলেন, ‘আপনার কোনো অভিযোগ থাকলে মেয়র বরাবর লিখিত অভিযোগ করেন।’ এ ব্যাপারে চান্দিনা পৌরসভার মেয়র মো. মফিজুল ইসলাম বলেন, ‘আমি প্রতিদিন  সকালে কাজ দেখতে যাই। আজ সকালেই আমি নিম্নমানের ইট, বালু দেখেছি। পরে কাউন্সিলর আখতার আহম্মেদ নাদিমও বিষয়টি জানিয়েছেন। এ বিষয়ে ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানকে কাজের গুণগত মান ঠিক রাখার বিষয়ে তাগিদ দেয়া হয়েছে। : :





দেশের পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

ঢাকা-নেপিদু সমঝোতা স্মারককে আপনি কি ধোঁকা বলে মনে করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
4696 জন