দৌলতদিয়া ঘাটে ১০ কিলোমিটার যানজট
১২ঘন্টা ফেরি চলাচল বন্ধ
Published : Monday, 1 January, 2018 at 12:00 AM
রাজবাড়ী প্রতিনিধি : দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে ঘন কুয়াশার কারণে শুক্রবার রাত ১১টা থেকে শনিবার  সকাল ১১টা পর্যন্ত ফেরি ও লঞ্চ চলাচল বন্ধ ছিল। পদ্মার মধ্য নদীতে ১১টি ফেরি শতাধিক বাস,ট্রাক ও প্রাইভেট কার নিয়ে যাত্রীরা প্রচন্ড শীতের মধ্যে আটকা পড়েছিল।  দেশের দক্ষিণ অঞ্চলের ২১টি জেলা থেকে ঢাকাগামী বাস, ট্রাক এর যাত্রীরা চরম দুর্ভোগের কবলে পড়ে। খুলনা থেকে ঢাকাগামী ঈগল পরিবহনের বাসের ড্রাইভার মফিজ জানান , রাত ১টায় দৌলতদিয়া ঘাটে যাত্রীবাহীবাস পৌঁছায়। শনিবার বিকাল ৪টা পর্যন্ত বাস ফেরিতে উঠতে পারেনি। দৌলতদিয়া ঘাটে ৩/৪ কিলোমিটার যাত্রীরা পায়ে হেঁটে ফেরি ঘাটে পৌঁছায়। ফেরিপার হয়ে অন্য লোকাল বাসে ঢাকায় পৌঁছায়। বেনাপোল থেকে ঢাকাগামী ট্রাক ড্রাইভার টুটুল জানান, গত ৩ দিন যাবত খোলা আকাশের নিচে দৌলতদিয়া ঘাটে পারাপারের অপেক্ষায় রয়েছি। এ ধরনের ৪ শতাধিক মাল ভর্তি ট্রাক পারাপারের অপেক্ষায় রয়েছে। কবে নাগাদ এসকল মাল ভর্তি ট্রাক পারাপার হতে পারবে তাও কেউ বলতে পারছে না। দৌলতদিয়া ঘাটে মারাত্মক যানজট বৃদ্ধি পাওয়ায় ১২কিলোমিটার অদূরে আহলাদিপুর হাইওয়ে থানা পুলিশ শুক্রবার রাত ৮টা থেকে বাজেমাল ভর্তি ট্রাক আটক করে রেখেছে। শনিবার বিকাল ৪টা পর্যন্ত দৌলতদিয়া ঘাটে ১০ কিলোমিটার বাস ও ট্রাকের দীর্ঘ লাইন দেখা যায়। ফেরিতে জুয়া ও   ছিনতাইকারীদের তৎপরতা বৃদ্ধি পেয়েছে। বি আই ডাব্লিউটিসি ঢাকা অফিস থেকে ২ বছর পূর্বে বড় ফেরিতে ঘন কুয়াশার মধ্যে ফেরি চলাচলের জন্য ৭ কোটি টাকা ব্যয়ে ফক লাইট লাগানো হয়। উক্ত ফক লাইট কোন কাজে আসেনি। সমুদয় টাকাই জলে চলে যায়। দুনীর্তিবাজ কর্মকর্তারা এখনও ধরা ছোঁয়ার বাইরে রয়েছে। দৌলতদিয়া ঘাটের বি আই ডাব্লিউটিসির ম্যানেজার শফিকুল ইসলাম জানান, চলতি বছর সব চেয়ে বেশি সময় ঘন কুয়াশায় শুক্রবার সকাল ১১টা পর্যন্ত ফেরি চলাচল বন্ধ ছিল। ১৭টি ছোটবড় ফেরি দিয়ে দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে যানবহন করা হচ্ছে। : :





দেশের পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

সুজন নেতৃবৃন্দ বলেছেন, রংপুরের ভোট নিয়ে ইসির নিরপেক্ষতা ও গ্রহণযোগ্যতা বিচার করা ঠিক হবে না। আপনি কি একমত?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
7424 জন