সিলেট লক্ষ্মীপুরে ছাত্রলীগে সংঘর্ষ : একজন নিহত
Published : Tuesday, 9 January, 2018 at 12:00 AM
দিনকাল ডেস্ক : সিলেটে নিজ দলের ক্যাডারদের ছুরিকাঘাতে ছাত্রলীগ কর্মী খুন হয়েছে। লক্ষ্মীপুরে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষে ৫ জন আহত হয়েছে। : সিলেট অফিস জানায়, সিলেট নগরীর টিলাগড়ে রবিবার রাত ৯টার দিকে নিজ দলের ক্যাডারদের ছুরিকাঘাতে তানিম খান নামের এক ছাত্রলীগকর্মী খুন হয়েছেন। নিহত তানিম সিলেট সরকারি কলেজের বিএ পাস কোর্সের শিক্ষার্থী এবং ছাত্রলীগের রঞ্জিত গ্রুপের অনুসারী। : তানিম সিলেটের ওসমানীনগর উপজেলার বুরুঙ্গা ইউনিয়নের নিজ বুরুঙ্গা গ্রামের ইসরাইল খানের ছেলে। শহরতলির ইসলামপুর এলাকায় একটি মেসে থাকত বলে তার সহপাঠীরা জানিয়েছেন। জানা গেছে, রাত ৯টার দিকে নগরীর টিলাগড় পয়েন্টে দাঁড়িয়ে ছিলেন তানিম। এসময় তাকে ছুরিকাঘাত করে প্রতিপক্ষ আজাদ গ্রুপের অনুসারীরা। এতে সে গুরুতর আহত হয়। সাথে সাথে তাকে ওসমানী হাসপাতালে নিয়ে গেলে ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তার শরীরের একাধিক স্থানে ছুরিকাঘাতের চিহ্ন রয়েছে বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে। শাহপরান থানা ওসি আখতার হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, এ ঘটনায় জড়িতদের গ্রেফতারে পুলিশ অভিযান শুরু করেছে। এদিকে তানিমের মৃত্যুর খবর পেয়ে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভিড় করেছেন তার সহকর্মীরা। এসময় জেলা ছাত্রলীগ নেতৃবৃন্দ সাংবাদিকদের সাথে কথাও বলেন। তাদের দাবি, ছাত্রলীগের ৭০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকীর দিনে গত বৃহস্পতিবার এমসি কলেজ ক্যাম্পাসের বাইরে থাকা আজাদ সমর্থিত গ্রুপের নেতাকর্মীরা মিছিল নিয়ে কলেজ ক্যাম্পাসে প্রবেশের চেষ্টা করে। ওইদিন রঞ্জিত অনুসারীদের ধাওয়ায় তারা ক্যাম্পাসে প্রবেশ করতে পারেনি। এর জেরেই ছাত্রলীগ কর্মী তানিমকে একা পেয়ে হামলা চালিয়ে হত্যা করা হয়েছে। : লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি জানান, লক্ষ্মীপুর কলেজ  ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের  সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন অন্তত ৫ জন। সোমবার সকাল ১১ টার দিকে লক্ষ্মীপুর সরকারি কলেজের মূল ফটকে এ ঘটনা ঘটে। জানা গেছে, কলেজ ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুল ইসলাম রকি ও সাধারণ সম্পাদক মহসিন কবির সাগরের অনুসারীদের মধ্যে এ সংঘর্ষ হয়। : আহতরা হলেন, তারেক, ইমন ও জুবায়েরসহ ৫ জন। তারা সবাই সরকারি কলেজের একাদশ শ্রেণির ছাত্র। আহতদের সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। : প্রত্যক্ষদর্শী জানায়, সোমবার সকালে কলেজের মূল ফটকে দেশীয় অস্ত্র-শস্ত্র নিয়ে ছাত্রলীগের দু’গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। এ সময় সরকারি কলেজের  সাধারণ শিক্ষার্থীদের মাঝে আতক্সক ও  ভয়ে ক্যাম্পাস এলাকা থেকে দৌড়ে দূরে সরে যায়। খবর পেয়ে কলেজের অধ্যক্ষ মাইন উদ্দিন পাঠান ও পুলিশ সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। : কলেজ শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মহসিন কবির সাগর বলেন, প্রেম সংক্রান্ত বিষয়কে কেন্দ্র করে কলেজ ছাত্র ও বহিরাগতদের মধ্যে সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে ঘটনাস্থল এসে কাউকে দেখতে পায়নি। তবে এ ঘটনায় ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা জড়িত নয় বলে দাবি করেন তারা। : লক্ষ্মীপুর সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ মাইন উদ্দিন পাঠান জানান, কলেজের মূল ফটকে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। কিন্তু কি কারণে, কারা এ ঘটনার সাথে জড়িত তা জানা যায়নি। এ ব্যাপারে একটি তদন্ত টিম গঠন করা হবে বলে জানান তিনি। : লক্ষ্মীপুর শহর পুলিশ ফাঁড়ির সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) আবু নাছের বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। তবে এ ঘটনায় জড়িত কাউকে আটক করা সম্ভব হয়নি। : :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

সাবেক আইজিপি নূরুল হুদা বলেছেন, রাজনৈতিক ব্যবহারের কারণে পুলিশের প্রতি জনগণের আস্থা কমছে। আপনি কি একমত?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
14305 জন