হাইকোর্টে ৬ মামলায় আগাম জামিন পেলেন কায়সার কামাল
Published : Tuesday, 9 January, 2018 at 12:00 AM
দিনকাল রিপোর্ট : পুলিশের কর্তব্য কাজে বাধাদান ও বেআইনি সমাবেশের অভিযোগে দায়েরকৃত ছয়টি মামলায় আগাম জামিন পেয়েছেন বিএনপি চেয়ারপারসনের আইনজীবী ও বিএনপির আইন বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার কায়সার কামাল। পুলিশ রিপোর্ট দাখিল করা পর্যন্ত তাকে এ জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট। : গতকাল সোমবার বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি কৃষ্ণা দেবনাথের সমন্বয়ে গঠিত ডিভিশন বেঞ্চ তার জামিন মঞ্জুর করে এ আদেশ দেন। এসব মামলায় আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করেন কায়সার কামাল। ব্যারিস্টার কায়সার কামালের পক্ষে আদালতে শুনানি করেন ব্যারিস্টার জমিরউদ্দিন সরকার ও অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন। সাথে ছিলেন আইনজীবী নিতাই রায় চৌধুরী, আসাদুজ্জামান আসাদ, রুহুল কুদ্দুস কাজল, মনিরুজ্জামান আসাদ, আতিকুর রহমান আতিক, মীর হেলাল, ফাইয়াজ জিবরান মঈন, আফতাব উদ্দিন, গোলাম মো. জাকির, রোকনউজ্জামান সুজা প্রমুখ। : আইনজীবীরা জানান, জিয়া অরফানেজ ও চ্যারিটেবল মামলায় বিচারিক আদালতে বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার বিচার চলছে। আদালতে বেগম খালেদা জিয়ার হাজিরা দেয়ার সময় বিএনপির দলীয় নেতাকর্মীরা বিভিন্ন সড়কে অবস্থান নেন। এ সময় শিক্ষাভবন এলাকায় পুলিশের সাথে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ হয়। পরে এ ঘটনায় গত ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে ছয়টি মামলা দায়ের করে পুলিশ। মামলায় কায়সার কামালকে আসামি করা হয়। অথচ ঘটনার সময় তিনি পিতার চিকিৎসার জন্য বিদেশে ছিলেন এবং বিএনপি চেয়ারপারসনের আইনজীবী হিসেবে দায়ত্ব পালনকালে বকশীবাজার অস্থায়ী আদালতে ছিলেন। সুতরাং ব্যারিস্টার কায়সার কামালের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। সংক্ষিপ্ত শুনানি শেষে হাইকোর্ট কায়সার কামালের জামিন মঞ্জুর করেন। : এ বিষয়ে আইনজীবী আতিকুর রহমান বলেন, এর আগে নাশকতার অভিযোগে কায়সার কামালের বিরুদ্ধে ২০, ২১ ২৬ ডিসেম্বর পৃথক পৃথক তিনটি ২৮ ডিসেম্বর ২টি এবং চলতি বছরের ৩ জানুয়ারির অপর একটিসহ মোট ছয়টি মামলা দায়ের করা হয়। কিন্তু ওই সময় তিনি থাইল্যান্ডে অবস্থান করছিলেন। তাই আদালতে তার জামিন চেয়ে আবেদন করা হলে আদালত এই ছয় মামলায় পুলিশ রিপোর্ট না দেয়া পর্যন্ত তার জামিন মঞ্জুর করেন। :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

সাবেক আইজিপি নূরুল হুদা বলেছেন, রাজনৈতিক ব্যবহারের কারণে পুলিশের প্রতি জনগণের আস্থা কমছে। আপনি কি একমত?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
14348 জন