নাখালপাড়ায় ‘জঙ্গি আস্তানায়’ অভিযানে ৩ জন নিহত
Published : Saturday, 13 January, 2018 at 12:00 AM
দিনকাল রিপোর্ট : রাজধানীর পশ্চিম নাখালপাড়ায় ‘রুবি ভিলায়’ র‌্যাব সদস্যদের অভিযানে তিন যুবক নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে। র‌্যাব কর্মকর্তারা গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন রুবি ভিলায় অভিযানকালে তিনজন ‘উগ্রবাদী নিহত’ হয়েছেন। এছাড়া র‌্যাবের দুই সদস্য আহত হয়েছেন। র‌্যাব কর্মকর্তারা বলেন, ওই বাড়িটি থেকে নিহত তিনজন ‘উগ্রবাদী যুবকের’ লাশ, গ্রেনেড, সুইসাইডাল ভেল্ট ও পিস্তল উদ্ধার করা হয়েছে। : গত বৃহস্পতিবার রাত আড়াইটা  থেকে ১৩/১ পশ্চিম নাখালপাড়ার এই বাড়িটি ‘রুবি ভিলা’ ঘিরে অভিযান শুরু করে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী। এর পর গতকাল শুক্রবার সকাল ৭টার দিকে র‌্যাবের বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল (বোম্ব ডিসপোজাল ইউনিট) ঘটনাস্থলে কাজ শুরু করে। ছয়তলা এই বাসার পঞ্চম তলায় মেস ছিল। : গতকাল শুক্রবার সকাল ৯টায় অভিযান শেষে ঘটনাস্থলে র‌্যাব মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ সাংবাদিকদের বলেন, ওই বাড়িটির ভেতরে তিন ‘জঙ্গির’ লাশ পাওয়া গেছে। নিহতরা সবাই ২০-৩০ বছরের যুবক। সম্ভবত তারা গ্রেনেডের বিস্ফোরণ ঘটিয়ে আত্মহত্যা করেছেন। বেনজীর আহমেদ বলেন, নিহত ৩ জনের মধ্যে জাহিদ ও সজীব নামে দুটি জাতীয় পরিচয়পত্র পাওয়া  গেছে। তবে সে দুটি পরিচয়পত্রের ছবি একই ব্যক্তির। ধারণা করা হচ্ছে, দুজনই একই ব্যক্তি। বাকিদের পরিচয় এখনো জানা যায়নি। ঘটনাস্থল থেকে দুটি ইম্প্রোভাইজড এক্সপ্লোসিভ ডিভাইস (আইইডি), বিস্ফোরক জেল ও একটি পিস্তল পাওয়ার কথা জানান র‌্যাব ডিজি। তিনি বলেন, গত ৪ জানুয়ারি এ তিনজন বাসাটা ভাড়া  নেয়। : র‌্যাবের মহাপরিচালক  বলেন, এ ঘটনায় বাড়ির মালিক ও কেয়ারটেকারকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। তিনি বলেন, পশ্চিম নাখালপাড়ায় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে মাত্র ১০০ গজ দূরে ‘রুবি ভিলা’র অবস্থান। সংসদ সদস্যদের সরকারি বাসভবন বা ন্যাম ভবনের কাছেই এটি। ছয়তলা বাসার পঞ্চমতলায় মেস বাসা ছিল। আমাদের মনে হচ্ছে তারা ভুয়া আইডি কার্ড ব্যবহার করে বাসাটি ভাড়া নিয়েছে। : এদিকে গতকাল দুপুর ২টার দিকে র‌্যাবের গণমাধ্যম শাখার পরিচালক মুফতি মাহমুদ খান এক ব্রিফিংকালে বলেন, তিনজন নিহত হয়েছে। তিনি বলেন, অভিযানে দুই র‌্যাব সদস্য আহত হয়েছেন। একজনের শরীরে গ্রেনেডের স্প্রিন্টার বিদ্ধ হয়েছে। দুইজনকেই হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ‘জঙ্গি সন্দেহে’ পশ্চিম নাখালপাড়ার  ‘রুবি ভিলায়’ এর আগে আরো দুবার অভিযান চালিয়ে কয়েকজনকে গ্রেফতার করার কথা জানিয়েছে র‌্যাব কর্মকর্তারা। তিনি বলেন, গোলাগুলি হয়েছে। এখানে ক্যাজুয়ালটি (মারা যাওয়ার ঘটনা) হয়েছে। ক্যাজুয়ালটি আছে ভেতরের দিকে।  গ্রেনেড ছুড়েছে তাই সে ক্ষেত্রে ভেতরে ঢোকা নিরাপদ নয়। কিন্তু ভেতরে কয়েকজন ক্যাজুয়ালটি হয়েছে। : মুফতি মাহমুদ খান বলেন, এই বাড়িতে ২০১৩ ও ২০১৬ সালে অভিযান চালায় র‌্যাব। ওই সময় অভিযান চালিয়ে জঙ্গি সন্দেহে ১২ জনকে  গ্রেফতার করা হয়। তিনি বলেন, নাশকতার জন্য উগ্রবাদীরা নাখালপাড়ায় অবস্থান নিয়েছে এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে মধ্যরাতে রুবি ভিলায় অভিযান শুরু করে র‌্যাব। প্রথমে মেইন গেইট ভেঙে ফেলা হয়। পরে পুরো ভবনের ৬৫ বাসিন্দাদের নিরাপদে সরিয়ে নেয়া হয়। অভিযানে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বেশ কয়েকজনকে আটক করে র‌্যাব হেফাজতে নেয়া হয়েছে। মুফতি মাহমুদ খান বলেন, বৃহস্পতিবার রাতের অভিযানে নিহতরা নিষিদ্ধ ঘোষিত ‘জঙ্গি সংগঠন জেএমবির’ সদস্য। তাদের পরিচয় এখনও নিশ্চিত হওয়া যায়নি। তিনি বলেন, ভবনটির মালিক সাব্বিরসহ কয়েকজনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটকের কথা জানিয়েছে র‌্যাব। শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত সন্দেহভাজন আস্তানায় আর কোন জীবিত ব্যক্তি নেই বলে ধারণা করা হচ্ছে।   : :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন, নির্বাচনের জন্য লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরি হয়েই আছে। আপনি কি তাই মনে করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
34045 জন