চাটমোহরের পল্লীতে অবাধে মাদক ব্যবসা
Published : Saturday, 27 January, 2018 at 12:00 AM
চাটমোহর (পাবনা) প্রতিনিধি : পাবনার চাটমোহর উপজেলার মাদক পল্লী খ্যাত মূলগ্রাম ইউনিয়নের কুবিরদিয়ার গ্রামে আবার শুরু হয়েছে মাদক ব্যবসায়ী ও সেবীদের দৌরত্ম্য। কিছু দিন আগে থানা পুলিশের ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যানের বিশেষ নজরদারির কারণে এলাকাটিতে সুন্দর পরিবেশ সৃষ্টি হলেও বর্তমানে সেখানে আবারো সেই পুরনো পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে। থানা পুলিশের তৎপরতা ও নজরদারি কমে যাওয়ায় এমনটি হয়েছে বলে স্থানীয়রা মনে করছেন। এলাকাবাসীর তথ্যে জানা গেছে, চাটমোহর থানার অন্তর্গত মূলগ্রামের এই কুবিরদিয়ার গ্রামে দীর্ঘদিনের একটি রেওয়াজ ও পরিচিতি রয়েছে মাদকের সহজ লভ্যতা হিসেবে। উপজেলাসহ আশপাশের বিভিন্ন এলাকা থেকে এই গ্রামে নির্বিঘেœ মাদক বিক্রি ও সেবন করে বিভিন্ন বয়সী মানুষ। বিশেষ করে যুবক বয়সী ছেলেদের এই এলাকায় বেশি আনাগোনা দেখা যায়। ইতিপূর্বে গ্রামের কয়েকজন মাদক ব্যবসায়ীকে পুলিশ গ্রেফতার করে জেলহাজতে প্রেরণ করলেও তারা জামিনে বের হয়ে আবারো সেই পুরনো ব্যবসা করতে থাকে। এসব মাদক ব্যবসায়ী ও সেবীদের এলাকার একটি প্রভাবশালী মহল সর্ব সময় অন্তরালে থেকে সেল্টার দিয়ে থাকে বলে এলাকার একাধিক সূত্রে জানা গেছে। বর্তমানে এই মাদক ব্যবসা অনেকটা ডিজিটাল কায়দায় হোম ডেলিভারি কৌশলে চলছে। ফোনেই চলে মাদকের অর্ডার যা কিনা বিকাশে পেমেন্ট হয় এবং কোনো একটি নির্দিষ্ট দোকান কিংবা বাড়িতে চাহিদা মাফিক পৌঁছে দিতে কোনো বেগ পেতে হয় না ব্যবসায়ী ও সেবককে। সম্প্রতি ওই গ্রামে মাদক ব্যবসার সঙ্গে জড়িত বলে যাদের নাম শোনা যাচ্ছে তারা হলোÑ কুবিরদিয়ার গ্রামের সিরাজ শেখের স্ত্রী খোদেজা খাতুন, ইউনুস আলির স্ত্রী নাছিমা খাতুন, মৃত শুকুর আলীর ছেলে রাজু হোসেন ও রতনপুর গ্রামের মৃত আব্দুল মান্নানের স্ত্রী ছকিনা খাতুন। অধিকাংশ মাদক ব্যবসায়ী মহিলা এবং তাদের স্বামীরা তাদের এই মাদক ব্যবসায় সর্ব সময় সহায়তা করে থাকে। বিষয়টি নিয়ে জানতে চাইলে সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার (চাটমোহর সার্কেল) তাপস কুমার পাল বলেন, চলমান বিশেষ অভিযানের অংশ হিসেবে মাদকের বিরুদ্ধে অভিযান অব্যাহত আছে। এসব অপরাধ কার্যক্রম প্রতিরোধে সর্ব সময় ২টি স্পেশাল টিম কাজ করে যাচ্ছে। : :





দেশের পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, আওয়ামী লীগের প্রতিপক্ষ এখন আওয়ামী লীগ। ভাগাভাগি নিয়েই প্রতিপক্ষ হচ্ছে বলে মনে করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
34201 জন