অমর একুশের বইমেলা
লেখক প্রকাশকরা নিজেরাই সেন্সর করছেন প্রকাশনা
Published : Saturday, 3 February, 2018 at 12:00 AM
দিনকাল রিপোর্ট : প্রতি বছর ফেব্রুয়ারির বইমেলা বাংলাদেশে লেখক প্রকাশক ও পাঠকদের জন্য মাসব্যাপী এক বড় উৎসব। বাংলাদেশে সবচে বেশি বই প্রকাশ হয় ফেব্রুয়ারির বই মেলাতেই। কিন্তু মেলায় প্রকাশিত বই নিয়ে গত কয়েক বছরে নানা বিতর্ক এবং অঘটনের প্রেক্ষিতে লেখকরা কতটা মুক্ত ও স্বাধীনভাবে লিখতে পারছেন এ প্রশ্নটি সামনে আসছে। : এক সময়কার বাম রাজনীতিতে সক্রিয় থাকলেও এখন লেখালেখি করেন মহিউদ্দিন আহমদ। মিস্টার আহমদের লেখার বিষয়বস্তু রাজনীতি, রাজনৈতিক দলের ইতিহাস ও গবেষণা। বাংলাদেশে লেখালেখির পরিবেশ নিয়ে মি: আহমদ বলেন, "এক ধরনের সেলফ সেন্সরশিপের মধ্যে দিয়ে যেতে হচ্ছে। এটা আমি অস্বীকার করবো না। আমি অনেক কিছুই লিখতে চাই। কিন্তু আমি মনে করি যে এটা লেখা যাবে না কারণ, লিখলে হয়তো প্রকাশক ছাপবে না অথবা প্রকাশক বিপদে পড়বে।" "এখানে রাজশক্তি ঢুকে পড়েছে। এই হলো সমস্যা। এখন আমাদের দেশে অনেকেই আছেন যারা সমালোচনা সহ্য করেন না। অসহিষ্ণু মনোভাব। তারা চান তাদের ডিকটেশন অনুযায়ী মানুষ লিখবে।" বাংলাদেশে ধারাবাহিক ব্লগার হত্যা, হুমকি ও নিরাপত্তাহীনতার কারণে এখন দেশান্তরী মাহমুদুল হক মুন্সী। রাজনৈতিক আশ্র এখন আছেন ইউরোপের একটি দেশে। ২০১৩ সালে শাহবাগে গণজাগরণ মঞ্চের ব্যানারে যে আন্দোলন হচ্ছিল সেখানকার নেতৃস্থানীয় একজন তিনি। মৌলবাদ এবং সামাজিক কুসংস্কারের বিরুদ্ধে বই প্রকাশের ইচ্ছা থাকলেও বাংলাদেশে কর্তৃপক্ষ সে বই আটকে দেবে বলেই তার আশঙ্কা। তিনি বলেন, "মামলা হামলা ও ধর্মের নামে অত্যাচারের যে সংস্কৃতি চলছে তাতে বাংলাদেশ নামক ভূখাে থেকে বেরি হামলায় নিহত হন। এছাড?া অভিজিৎ রার বই যে প্রকাশনী থেকে বের হচ্ছে সেখানেও হামলা হচ্ছে। এছাড?া জাগৃতি প্রকাশনীর মালিক খুন হচ্ছেন নিজ অফিসের মধ্যেই। ২০১৫ সালে বইমেলায় ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দি বই প্রকাশ করার অভিযোগে রোদেলা প্রকাশনীর স্টল বন্ধ করা হয়। ২০১৬ সালে বদ্বীপ প্রকাশনীর স্টল বন্ধ করা হয় একই অভিযোগ এবং গ্রেফতার হন লেখক ও প্রকাশক। : :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন,  সরকার মিডিয়ার স্বাধীনতায় বিশ্বাসী। আপনি তা বিশ্বাস করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
8316 জন