দুইদিনের সফরে ঢাকায় আসছেন ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী রবিন জনসন
Published : Saturday, 3 February, 2018 at 12:00 AM, Update: 02.02.2018 11:12:20 PM
দুইদিনের সফরে ঢাকায় আসছেন ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী রবিন জনসনদিনকাল ডেস্ক : আগামী ৯ ফেব্রুয়ারি দুই দিনের সফরে আসবেন ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী। আগামীকাল রবিবার চারদিনের সফরে আসছেন সুইস কনফেডারেশনের প্রেসিডেন্ট। ৪ মার্চ আসবেন ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট। দ্বিপক্ষীয় আলোচনার পাশাপাশি এই অতিথিদের প্রত্যেকেই যাবেন রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শনে। এর মধ্যে ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্টের কর্মসূচি এখনো চূড়ান্ত না হলেও আসিয়ান জোটের অন্যতম এই রাষ্ট্রটির প্রেসিডেন্ট রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শনে গেলে তা মিয়ানমারের জন্য বড় ধরনের চাপ  তৈরি করবে বলে মনে করা হচ্ছে। : জানা যায়, সুইজারল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট অ্যালেন ব্যারসেটকে বিমানবন্দরে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদ অভ্যর্থনা জানাবেন। রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের সঙ্গে বৈঠকের পাশাপাশি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে তার দ্বিপক্ষীয় বৈঠক অনুষ্ঠিত হবে। এসব আলোচনায় রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের পাশাপাশি বাংলাদেশ ও সুইজারল্যান্ডের দ্বিপক্ষীয় স্বার্থসংশ্লিষ্ট বিষয় থাকছে। এছাড়া তিনি বীর শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানানো এবং বঙ্গবন্ধু স্মৃতিজাদুঘর পরিদর্শনে যাবেন। সফরে তিনি রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করতে কক্সবাজার যাবেন। এটা সুইজারল্যান্ডের কোনো প্রেসিডেন্টের প্রথম বাংলাদেশ সফরই শুধু নয়, জাতিসংঘ অধিবেশনের বাইরে সুইস কনফেডারেশনের প্রেসিডেন্টের প্রথম কোনো বিদেশ সফরও। কারণ এক বছর মেয়াদের সুইস কনফেডারেশনের প্রেসিডেন্টরা সাধারণত বিদেশ সফর করেন না। : পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা জানান, দুই দিনের সফরে আগামী ৯ ফেব্রুয়ারি ঢাকা আসছেন ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসন। দ্বিপক্ষীয় সম্পর্ককে কৌশলগত অংশীদারে উন্নীত করার লক্ষ্য নিয়ে প্রায় এক দশক পর কোনো ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রীর এই সফর। এ সফরে রোহিঙ্গা ইস্যু নিয়ে আলোচনার পাশাপাশি যুক্তরাজ্যে কার্গো অবরোধ তুলে নেয়ার বিষয়টির চূড়ান্ত ঘোষণা আসতে পারে। সেই সঙ্গে বাংলাদেশের পক্ষ থেকে ভিসা সংক্রান্ত জটিলতার বিষয়টি গুরুত্বের সঙ্গে উত্থাপিত হবে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী এএইচ মাহমুদ আলীর সঙ্গে দ্বিপক্ষীয়  বৈঠক ছাড়াও তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন। : কূটনৈতিক সূত্রের খবর, তিনদিনের সফরে আগামী ৪ মার্চ ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট ত্রান দাই কুয়াং বাংলাদেশে আসছেন। ২০১৫ সালের আগস্টে রাষ্ট্রপতি আবদুল হামিদের ভিয়েতনাম সফরের ফিরতি সফর হিসেবে তিনি আসছেন। সফরে  রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করবেন। দুই দেশের শীর্ষস্থানীয় ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোর অংশগ্রহণে এই সফর আয়োজিত হবে ‘বাংলাদেশ-ভিয়েতনাম বিজনেস ফোরাম’র  বৈঠক। ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্টের সফরসঙ্গী হিসেবে ঢাকায় আসবেন সেখানকার ১০০ প্রতিষ্ঠানের দুই শতাধিক ব্যবসায়ীর সমন্বয়ে গঠিত প্রতিনিধি দল। বাংলাদেশে বিনিয়োগের সম্ভাব্যতা যাচাই-বাছাই করে দেখবেন ভিয়েতনামের ব্যবসায়ীরা। ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শনে যাবেন কি না সে বিষয়ে এখনো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হয়নি। : :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

স্বাস্থ্যমন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম বলেছেন,  সরকার মিডিয়ার স্বাধীনতায় বিশ্বাসী। আপনি তা বিশ্বাস করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
8335 জন