খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার রায় আজ
Published : Thursday, 8 February, 2018 at 12:00 AM, Update: 07.02.2018 10:53:59 PM
দিনকাল রিপোর্ট : বিএনপি চেয়ারপারসন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে করা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার রায় ঘোষণা করার দিন ধার্য রয়েছে আজ বৃহস্পতিবার। বকশীবাজার আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে স্থাপিত ৫নং বিশেষ জজ ড. আখতারুজ্জামান এ মামলার রায় ঘোষণা করবেন। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলার রায় শুনতে আজ বৃহস্পতিবার আদালতে যাবেন বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়া। এদিন সকাল ১০টার দিকে বেগম খালেদা জিয়া বকশীবাজারের আলিয়া মাদ্রাসা মাঠে স্থাপিত বিশেষ আদালতে উপস্থিত হবেন। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলা ২৩৬ কার্যদিবসে শেষ হয়েছে। এ মামলায় স্যা দিয়েছেন ৩২ জন। আত্মপ সমর্থনে গেছে ২৮ দিন। যুক্তি উপস্থাপন চলেছে ১৬ দিন। রাষ্ট্র ও আসামিপরে যুক্তি উপস্থাপন শেষে রায় ঘোষণার জন্য ৮ ফেব্রুয়ারি দিন ধার্য করা হয়। গত ২৫ জানুয়ারি এ মামলার রায়ের দিন ধার্য করেন আদালত। বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার পে যুক্তিতর্ক উপস্থাপন করে তাঁর আইনজীবী আব্দুর রেজ্জাক খান বলেন, ‘বেগম খালেদা জিয়ার মামলার সব ডকুমেন্ট ওভাররাইটিং-ঘষামাজা। সব সাীই বলেছেন, তারা জানে না এগুলো (ওভাররাইটিং-ঘষামাজা) কে করেছে। ঘষামাজা, ঘষামাজা আর ঘষামাজা দিয়েই চলছে এই মামলা। বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে কোনো প্রমাণ দাখিল করতে না পারায় তিনি সকল অভিযোগ থেকে খালাস পাবেন। এই মামলার চূড়ান্ত প্রতিবেদনের সময়ই বেগম খালেদা জিয়াকে খালাস দেয়া উচিত ছিল। আমি আশা করি স্বাধীনভাবে আপনি ন্যায়বিচার করবেন এবং তিনি খালাস পাবেন।’ বেগম খালেদা জিয়ার অপর আইনজীবী খন্দকার মাহবুব হোসেন বলেন, ‘আমরা যাই বলি না কেন, স্যা-প্রমাণে যাই থাকুক না কেন, এটি একটি রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত মামলা। সরাসরি কোনো নথিপত্র ছাড়াই বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দেয়া হয়েছে। স্বারবিহীন ঘষামাজা ছায়ানথি দিয়ে কাউকে সাজা দেয়া যায় না।’ আরেক আইনজীবী ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ বলেন, ‘মিথ্যা মামলায় বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে কোনোভাবেই সাজা দেয়া যাবে না। তিনি এ মামলায় বেকসুর খালাস পাবেন। পুরো মামলাটি কাল্পনিক। ঘষামাজার ওপর নির্ভর করে মামলাটি দাঁড় করানো হয়েছে। মামলার মূল নথি পাওয়া যায়নি। সেখানে তারা নতুন করে কাগজ তৈরি করেছেন। মামলাটি ভুয়া।’ : : : :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

সুজন নেতৃবৃন্দ বলেছেন, সড়কে ভিআইপি লেনের প্রস্তাব বৈষম্যমূলক। আপনিও কি তাই মনে করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
22446 জন