ইংরেজি দ্বিতীয় পত্রের প্রশ্নও ফাঁস
Published : Thursday, 8 February, 2018 at 12:00 AM, Update: 07.02.2018 10:53:23 PM
দিনকাল রিপোর্ট : শিা মন্ত্রণালয়ের কোনো চেষ্টাতেই কাজ হচ্ছে না, চলমান এসএসসি ও সমমানের পরীায় গত কয়েক দিনের মতো ইংরেজি দ্বিতীয়পত্রের প্রশ্নও ফাঁস হয়েছে সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে। গতকাল বুধবার পরীা শুরু হওয়ার আগেই সকাল ৯টা ২০ মিনিট থেকে ৯টা ২৪ মিনিটের মধ্যে একাধিক ফেসবুক গ্রুপে ‘খ’ সেট এর প্রশ্ন চলে আসে। পরীা শেষে দেখা যায়, ওই সেটেই শিার্থীদের পরীা নেয়া হয়েছে। : আর সব প্রশ্ন মিলেও গেছে। গত ১ ফেব্রুয়ারি থেকে শুরু হওয়া এসএসসি ও সমমানের বাংলা প্রথম ও দ্বিতীয় পত্র দুটি পরীারই প্রশ্ন ফাঁস হওয়ার পর রবিবার প্রশ্ন ফাঁসকারীকে ধরিয়ে দিলে পাঁচ লাখ টাকা পুরস্কার দেয়ার ঘোষণা দেন শিামন্ত্রী। এছাড়াও বাংলা প্রথম ও দ্বিতীয় পত্র পরীার প্রশ্ন ফাঁসের অভিযোগের প্রোপটে করণীয় নির্ধারণে একটি কমিটি গঠন করে দেন। কিন্তু সোমবার ইংরজি প্রথম পত্রের প্রশ্নও ফাঁস হয় এবং ইংরেজি দ্বিতীয় পত্রের প্রশ্ন ফাঁসের বিজ্ঞাপন দেয়া শুরু হয়। এমনকি প্রশ্ন ফাঁসে জড়িত কিছু গ্রুপের নাম গণমাধ্যমে আসায় বিষয়টিকে কৃতিত্ব হিসেবে দেখিয়ে নতুন উদ্যমে প্রচার চালাতে দেখা যায় তাদের। : গতকাল বুধবার ইংরেজি দ্বিতীয় পত্রের পরীার সকালে ৯টা ২০ মিনিটে ‘ঊহমষরংয ঝঁমমবংঃরড়হ ভড়ৎ ঝঝঈ ধহফ ঐঝঈ বীধসরহবব’ নামে ফেইসবুক মেসেঞ্জার গ্রুপে সকাল ৯টা ২৪ মিনিটে ‘মো. ইমাজ উদ্দিন রিয়াদ’ এবং ঝঝপ ঊহমষরংয ২হফ ২০১৮ নামের গ্রুপে জরফড়ু কযধহ নামের আইডি থেকে ‘খ’ সেটের প্রশ্নের দুটি ইমেজ পাঠানো হয়। : এছাড়া চঝঈ. ঔঝঈ. ঝঝপ. ঐঝঈ ঊীধস ঐবষঢ়রহম ঈবহঃবৎ নামের গ্রুপে ‘আমি আর তুমি’ ও ‘রেজাউল করিম’, জধভংধহ জড়হু ও ঝযড়ঢ়হড়ঐরহ ইধষড়শ নামের আইডি থেকে পরীার আধা ঘণ্টা আগে একই প্রশ্নের ইমেজ দিয়ে বলা হয়, ‘১০০% পড়সসড়হ ফরংংর হবীঃ য়ঁবংঃরড়হ ধৎ লড়হহড় রহনড়ী শড়ৎড়। : সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমে প্রশ্ন ফাঁসের খবর আসার পরপরই গণমাধ্যমের প থেকে ইমেইলে বিষয়টি ঢাকা শিা বোর্ড কর্তৃপকে জানানো হয়। পরীা নিয়ন্ত্রক তপন কুমার সরকার তখন বলেন, বিষয়টি তারা দেখবেন। : পরীা শেষে আবারও যোগাযোগ করা হলে পরীা নিয়ন্ত্রক বলেন,  ‘যে সময় প্রশ্ন পেয়েছেন আপনারা, ওই সময়ে তো বাচ্চারা ঢুকে যায় হলে। তার মানে তারা তো প্রশ্ন পায়নি।’ তারপরও যে তথ্য দেয়া হয়েছে সেগুলো আমাদের যে সংস্থাগুলো কাজ করছে, বিটিআরসি ও আমাদের গোয়েন্দা সংস্থার সাইবার ক্রাইম ইউনিট, তাদেরকে আমি মেইল করে দিয়েছি। তারা ব্যবস্থা নিচ্ছে। কারা ওই সময়ে এসব আপলোড করছে তা অবশ্যই বের হবে। আমার মনে হয় অচিরেই আপনারা দেখতে পাবেন কারা এরা। : :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

সুজন নেতৃবৃন্দ বলেছেন, সড়কে ভিআইপি লেনের প্রস্তাব বৈষম্যমূলক। আপনিও কি তাই মনে করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
22439 জন