কুমিল্লার তিন মামলায় খালেদা জিয়া শ্যোন অ্যারেস্ট
Published : Tuesday, 13 February, 2018 at 12:00 AM
দিনকাল রিপোর্ট : বিএনপি চেয়ারপারসন ও তিনবারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী বর্তমানে কারাবন্দি বেগম খালেদা জিয়াকে কুমিল্লার একটি নাশকতা মামলায় শ্যোন অ্যারেস্ট দেখিয়েছে পুলিশ। গতকাল সোমবার পুলিশ তাকে ওই মামলায় শ্যোন অ্যারেস্ট দেখায়। : কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামের মিয়াবাজার সংলগ্ন জগমোহনপুর এলাকায় বাসে পেট্রলবোমা নিক্ষেপের মামলায় গত ২ জানুয়ারি খালেদা জিয়াসহ ৪৯ জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে কুমিল্লার আমলি আদালত। আগামী ২ ফেব্রুয়ারি কুমিল্লার আমলি আদালতে (চৌদ্দগ্রাম) ওই মামলার বিচারকার্যের দিন ধার্য করা হয়েছে। : গতকাল গণমাধ্যমকে এ বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিএনপির যুগ্ম মহাসচিব ও সুপ্রিম কোর্ট আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকন। তিনি বলেন, এর মাধ্যমে ফ্যাসিবাদী সরকার আবারো প্রমাণ করেছে বেগম খালেদা জিয়াকে কারাগারে রাখতেই কথিত কুমিল্লার নাশকতা মামলায় বেগম খালেদা জিয়াকে শ্যোন অ্যারেস্ট দেখানো হয়েছে। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় দুদকের সাথে সরকার যোগসাজশ করেছে বলেও মন্তব্য করেন তিনি। : এদিকে পুলিশ সদর দফতরের জনসংযোগ বিভাগের এআইজি সহেলী ফেরদৌস সাংবাদিকদের বলেন, ‘কুমিল্লায় নাশকতার মামলার তদন্ত শেষে আদালতে চার্জশিট দিয়েছে কুমিল্লা জেলা পুলিশ। আদালত চার্জশিটটি গ্রহণ করে মামলার অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে  গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেছে।  গ্রেফতারি পরোয়ানাটি কুমিল্লা জেলা পুলিশ ঢাকায় পাঠিয়েছে।’ : ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারের জেলার মাহবুবুল ইসলাম সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ‘কারা কর্তৃপক্ষের হাতে খালেদা জিয়ার নতুন কোনো মামলার কাগজপত্র এখনও পৌঁছেনি।’ : গতকাল সকালে কুমিল্লা ডিবি পুলিশের ইন্সপেক্টর ও সংশ্লিষ্ট নাশকতার মামলাটির তদন্ত কর্মকর্তা ফিরোজ সাংবাদিকদের জানান, ২০১৫ সালের জানুয়ারি ও ফেব্রুয়ারিতে কুমিল্লার চৌদ্দগ্রামে নাশকতার ঘটনায় তিনটি মামলা দায়ের করা হয়েছিল। অন্যদের সঙ্গে এসব মামলায় বেগম খালেদা জিয়াসহ বিএনপির ৭ শীর্ষ নেতা হুকুমের আসামি ছিলেন। ২০১৭ সালের পৃথক সময় ও গত জানুয়ারিতে বেগম খালেদা জিয়াসহ অন্য আসামিদের বিরুদ্ধে দায়ের করা একটি মামলায় গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন কুমিল্লার আমলি আদালত। জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলার রায়ের পর নতুন রাজনৈতিক প্রেক্ষাপটে খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে মামলাটির গ্রেফতারি পরোয়ানা ঢাকায় পাঠানো হলো। : :





প্রথম পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

আসক নেতৃবৃন্দ বলেছেন, রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে দ্রুত বিচার আইনে শাস্তি বাড়ানো হয়েছে। আপনিও কি তাই মনে করেন?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
42319 জন