ফজল আহমদ ব্রিজ ঝুঁকিপূর্ণ দুর্ঘটনায় প্রাণহানির আশঙ্কা
Published : Friday, 16 February, 2018 at 12:00 AM
পটিয়া (চট্টগ্রাম) থেকে সেলিম চৌধুরী : পটিয়া উপজেলার কোলাগাঁও ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের লাখেরা গ্রামের ফজল আহমদ ব্রিজ ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। এ ব্রিজটি ধসে পড়ে যে কোনো মুহূর্তে বড় ধরনের প্রাণহানির ঘটনা ঘটতে পারে বলে স্থানীয়দের অভিযোগ। তথ্য অনুসন্ধানের সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ব্রিজটি এরশাদ সরকার আমলে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা মহসিন খান উপজেলা পরিষদের অর্থায়নে তৎসময়ে এমপি সিরাজুল ইসলাম চৌধুরীর অনুমতিক্রমে এ ব্রিজটি নির্মিত হওয়ার পর থেকে অদ্যাবধি আর কোনো সরকার এ ব্রিজটি পুনঃসংস্কারের উদ্যোগ গ্রহণ করেনি। ওই সময় ব্রিজটি নির্মাণ করলে এলাকাবাসীর মধ্যে প্রাণচাঞ্চল্য ফিরে এসেছিল। বর্তমান সময়ে জনসংখ্যা বৃদ্ধি পাওয়ায় এ ব্রিজ দিয়ে প্রতিদিন হাজার হাজার মানুষ ও বিভিন্ন গাড়ি চলাচল করে থাকে। এ ছাড়া ওই এলাকায় বিভিন্ন কল-কারখানা শিল্প প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠায় যাতায়াতেও আগের চেয়ে তিন গুণ বৃদ্ধি পেয়েছে। ফলে এলাকাবাসীর দাবি, অবিলম্বে সরেজমিনে ব্রিজটি ঝুঁকিপূর্ণ কিনা তদন্তপূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষসহ পটিয়ার এমপি আলহাজ সামশুল হক চৌধুরী সুদৃষ্টি কামনা করেছেন।  এ ব্যাপারে স্থানীয় বাসিন্দা আবুল হোসেন চৌধুরী জানান, শিকলবাহা খালের সঙ্গে সংযুক্ত ফজল আহমদ ব্রিজটি অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ, ব্রিজের রেলিং ভেঙে গিয়েছে এবং লোহার রড ঢালাই থেকে উঠে গিয়ে ভাঙ্গাচুড়া কংক্রিট দেখা যাচ্ছে। গাড়ি চলাচলসহ সাধারণ মানুষের চলাচলে চরম ভোগান্তি হচ্ছে। অসাবধনতার ফলে যে কোনো মুহূর্তে প্রাণহানির ঘটনা ঘটতে পারে। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ জরুরি মনে করেন তিনি। স্থানীয় সিটি কলেজ ছাত্র মো. সোহেল জানান, কোলাগাঁও ইউনিয়নের জনবসতি এলাকা লাখেরা গ্রামের ফজল আহমদ এ ব্রিজ দিয়ে হাজার হাজার মানুষ চলাচল করে থাকেন। দীর্ঘদিন ব্রিজটি সংস্কার না হওয়ায় এলাকায় সব শ্রেণীর মানুষের মধ্যে ক্ষোভ রয়েছে। তিনি এ ব্যাপারে ব্রিজটি পুনঃসংস্কারের মাধ্যমে এলাকার মানুষকে ঝুঁকিমুক্ত রাখার দাবি জানিয়েছেন। রিকশাচালক আফাজ উদ্দিন জানান, রাতের অন্ধকারে ঝুঁকি নিয়ে গাড়ি ও হাজার হাজার জনসাধারণ চলাচল করে থাকেন এ ব্রিজ দিয়ে। ব্রিজটি এখন অত্যন্ত ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। ফলে গাড়ি চলাচলের ক্ষেত্রে আমাদের দুর্ভোগ পোহাতে হয়। : :





দেশের পাতা'র আরও খবর
অনলাইন জরিপ

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম বলেছেন, বিএনপিকে নির্বাচন থেকে দূরে রাখতেই খালেদা জিয়াকে গ্রেফতার করা হচ্ছে। আপনি কি একমত?
 হ্যাঁ   না   মন্তব্য নেই
দিনকাল ই-পেপার
পুরনো সংখ্যা
আজকের মোট পাঠক
3906 জন